দেশের নদী ভাঙন মোকাবিলা ও সমাধান আমাদেরই করতে হবে

প্রকাশিত: ১০:০৪ পিএম, মার্চ ৩, ২০২১
  • শেয়ার করুন

বাংলাদেশের এক একটা নদীর চারিত্রিক বৈশিষ্ট্য একেক ধরনের উল্লেখ করে পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক বলেছেন, দেশের নদী ও পানি সম্পর্কে জানতে হবে। এ বিষয়ে আরও জ্ঞান অর্জন করতে হবে। আর এজন্যই একটি আন্তর্জাতিক মানের গবেষণা ইনস্টিটিউট নির্মাণের কার্যক্রম শুরু করা হয়েছে।

বুধবার (০৩ মার্চ) বিকেল ৪টার দিকে রাজধানীর খিলক্ষেতের মস্তুল এলাকায় আন্তর্জাতিক পানিসম্পদ ব্যবস্থাপনা ও গবেষণা ইনস্টিটিউট এর নির্মাণ কার্যক্রমের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন প্রতিমন্ত্রী।

খিলক্ষেত মস্তুল এলাকায় একশ একর জায়গার ওপর নির্মাণ করা হবে আন্তর্জাতিক পানি সম্পদ ব্যবস্থাপনা ও গবেষণা ইনস্টিটিউট।

পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক বলেন, বাংলাদেশ একটি নদীমাতৃক দেশ। জলবায়ু পরিবর্তন ও পরিবেশগত কারণে পৃথিবীর ৫টি ক্ষতিগ্রস্ত দেশের মধ্যে বাংলাদেশও একটি। দেশে প্রতিবছরই নদী ভাঙন হয়। এটি একটি সমস্যা। এর মোকাবিলা করতে হবে, সমাধানও আমাদেরই করতে হবে। এজন্য নদী ও পানি সম্পর্কে আমাদের জানতে হবে। এবিষয়ে আরও জ্ঞান অর্জন করতে হবে। কারণ বাংলাদেশের এক একটা নদীর চারিত্রিক বৈশিষ্ট্য একেক ধরনের। এগুলো গবেষণা করতে হবে। আর এই গবেষণা করার জন্যই বাংলাদেশে আন্তর্জাতিক পানিসম্পদ ব্যবস্থাপনা ও গবেষণা ইনস্টিটিউট তৈরির উদ্যোগ নিয়েছি।

তিনি বলেন, আজ থেকেই এর নির্মাণ কার্যক্রম শুরু হলো।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, বিশ্বের মধ্যে যদি নেদারল্যান্ডসের দিকে তাকাই তবে দেখা যাবে নেদারল্যান্ডস সমুদ্রের তলদেশে অবস্থান তৈরি করেছে। ওই দেশের মানুষের পরিশ্রম করেই নেদারল্যান্ডসকে বিশ্বের মধ্যে উন্নত দেশ হিসেবে দাঁড় করাতে পেরছে।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য শেষে আন্তর্জাতিক পানিসম্পদ ব্যবস্থাপনা ও গবেষণা ইনস্টিটিউট এর নির্মাণ কার্যক্রমের ফলক তুলে শুভ উদ্বোধন করেন প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক।

পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব কবির বিন আনোয়ারের সভাপতিত্বে উদ্বোধন অনুষ্ঠানে এসময় উপস্থিত ছিলেন- পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের উপমন্ত্রী এ কে এম এনামুল হক শামীম, সংসদ সদস্য মোহাম্মদ হাবিব হাসান, পানি উন্নয়ন বোর্ডের মহাপরিচালক এ কে এম ওয়াহেদ উদ্দিন চৌধুরী প্রমুখ।